ইউরোপের সবচেয়ে বিপজ্জনক আগ্নেয়গিরিটি ধীরে ধীরে সাগরের দিকে যাচ্ছে- নতুন গবেষণায় এমন তথ্য উঠে এসেছে।

শনিবার বিবিসি অনলাইনে এ খবর প্রকাশ করা হয়।

">
Pran All Time

ইউরোপের বৃহত্তম আগ্নেয়গিরি সমুদ্রের দিকে এগুচ্ছে

UNB NEWS

রবিবার ২৫ মার্চ, ২০১৮ ১০:৪২:১২ এএম

ইউরোপের বৃহত্তম আগ্নেয়গিরি সমুদ্রের দিকে এগুচ্ছে

নিউ ইয়র্ক, ২৫ মার্চ (ইউএনবি)- ইউরোপের সবচেয়ে বিপজ্জনক আগ্নেয়গিরিটি ধীরে ধীরে সাগরের দিকে যাচ্ছে- নতুন গবেষণায় এমন তথ্য উঠে এসেছে।

শনিবার বিবিসি অনলাইনে এ খবর প্রকাশ করা হয়।

বিজ্ঞানীরা বলছেন, তারা আগ্নেয়গিরিটির চলাচলের উপর নজর রাখছে, কারণ এটি ভবিষ্যতে ভূমিধস ঘটাতে পারে এবং অগ্ন্যুৎপাতকে প্রভাবিত করতে পারে।

মাউন্ট এ্টনা সিসিলি ইতালীয় দ্বীপে অবস্থিত। এটি প্রতি বছর প্রায় ১৪ মিলিমিটার করে ভূমধ্যসাগরের দিকে এগিয়ে যাচ্ছে।

যেহেতু এর এগিয়ে যাওয়ার ধরন খুব ধীরগতিতে তাই এটি নিয়ে তেমন উদ্বেগ নেই। তবে আগ্নেয়গিরির ভূতত্ত্ব অধ্যয়নরত বিজ্ঞানীরা বলেছেন, পরিস্থিতি সতর্কতার সাথে পর্যবেক্ষণ করা প্রয়োজন।

ব্রিটেনের ওপেন ইউনিভার্সিটির ভূবিজ্ঞানের গবেষক ও লেখক ড. জন মুরিয়া বিবিসিকে বলেন, আমি বলব যে বর্তমানে কোনো বিপদ নেই, তবে এর উপর নজর রাখতে হবে। বিশেষ করে এই গতিতে কেমন ত্বরণ দেখতে পাওয়া যায়। কারণ এর ফলে নানা ধরনের ঝুঁকি তৈরির শঙ্কা রয়েছে। প্রথমবার একটি সম্পূর্ণ সক্রিয় আগ্নেয়গিরির "মূল গতি" সরাসরি পর্যবেক্ষণ করা হয়েছে।

ভূবিজ্ঞানীরা বলছেন, সাধারণ বিবেচনায় বছরে ১৪ মি.মি. কিংবা ১০০ বছরে ১.৪ মিটার সরে যাওয়া খুব বেশি বলে মনে নাও হতে পারে। কিন্তু থেমে থাকা আগ্নেয়গিরি, যাদের মধ্যে আগে এ ধরনের প্রবণতা দেখা গেছে, তাদের কারণে মারাত্মক ভূমিধ্স নানা ধরনের সঙ্কট তৈরি হয়েছে।

ড. জন মাউন্ট এট্‌না সম্পর্কে গবেষণা চালিয়েছেন প্রায় ৪০ বছর ধরে। এই গবেষণায় তিনি এই পর্বতের নানা জায়গায় জিপিএস স্টেশন বসিয়েছেন। সামান্য নড়াচড়া হলেও এই স্টেশনের যন্ত্রে তা ধরা পড়বে।

এসব যন্ত্র থেকে গত ১১ বছরে প্রাপ্ত উপাত্ত থেকেই বিজ্ঞানীরা বলছেন, মাউন্ট এট্‌না এখন দক্ষিণ-পূর্বমুখী হয়ে একটু একটু করে ভূমধ্যসাগরের দিকে যাচ্ছে।